এইচএসবিসি প্রথম আলো

ভাষা প্রতিযোগ

 

এ বছরের ভাষা প্রতিযোগ শুরু হয়েছে।

 

ভাষা প্র

ভাষা প্রতিযোগ জাতীয় উৎসবে মিফরা এবং মাইশা

ছয় রাস্তার মোড় আছে কুষ্টিয়ায়, ভাষা প্রতিযোগকে কেন্দ্র করে ছয় জেলার সম্মিলনও হলো সেখানে। চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর, ঝিনাইদহ, মাগুরা, রাজবাড়ী ও ফরিদপুর থেকে কয়েক শ শিক্ষার্থী প্রাণের উচ্ছ্বাসে ছড়াল ভাষার জয়গান। ওরা চতুুর্থ থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থী। এইচএসবিসি-প্রথম আলো ভাষা প্রতিযোগ-২০১২-এর প্রতিযাগী। ২৫ ফেব্রুয়ারি, শুক্রবার। মেলার আয়োজনে সেজেছিল কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজ। সকাল নয়টায় আমরা যখন পৌঁছাই, তার আগেই ওরা হাজির। পরনে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বৈচিত্র্যময় পোশাক।
১০টায় শুরু হলো অনুষ্ঠান। ঢাকা থেকে আগত ও স্থানীয় অতিথিদের নিয়ে উদ্বোধন ঘোষণা করলেন অধ্যক্ষ মুহাম্মদ জমির উদ্দীন। পরিবেশিত হলো জাতীয় সংগীত। ভাষা প্রতিযোগের পতাকা উত্তোলন করলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সৈয়দ আজিজুল হক। শিক্ষার্থীরা সারিবদ্ধভাবে ঢুকে গেল পরীক্ষাকেন্দ্রে। ৩০ মিনিটের পরীক্ষা।
শিক্ষার্থীদের প্রশ্ন আর শিক্ষকদের উত্তর—ভিন্নধর্মী এই আয়োজনে শুরু হলো দ্বিতীয় পর্ব।
সঞ্চালন করলেন প্রথম আলোর সহকারী সম্পাদক অরুণ বসু। মাইক্রোফোন হাতে প্রস্তুত প্রথম আলো বন্ধুসভার কুষ্টিয়ার বন্ধুরা।
মঞ্চে ততক্ষণে হাজির হয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলার শিক্ষক সৈয়দ আজিজুল হক, সৌমিত্র শেখর ও তারিক মনজুর। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলার শিক্ষক খালেদ হোসাইন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলার শিক্ষক হাবিব রহমান, মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান, ইয়াসমিন আরা সাথী ও সাবিনা ইয়াসমিন। ঝিনাইদহ ক্যাডেট কলেজের শিক্ষক সাইফুল আলম এবং আমলা সরকারি কলেজের শিক্ষক মাসুদ রহমান ও গাংনী কলেজের শিক্ষক রফিকুর রশীদ।
প্রশ্নের বন্যায় বানের জলের মতো থইথই করে ওঠে পুরো এলাকা। ভাষা প্রতিযোগিতা না হয়ে ভাষা প্রতিযোগ কেন হলো? এমন প্রশ্নে
তারিক মনজুর বলেন, বাংলা একাডেমীর অভিধানে প্রথমে প্রতিযোগ, তারপর প্রতিযোগিতা রয়েছে। ভাষা প্রতিযোগের সভাপতি অধ্যাপক আনিসুজ্জামান ‘প্রতিযোগ’ শব্দটিকে নতুন করে তুলে এনেছেন।
আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস বাংলা সনের তারিখে না হয়ে কেন ইংরেজি বছরের তারিখে হলো? আমাদের দেশটা বঙ্গ ছিল, পরে বাংলা হলো কেন?
বুঝিয়ে বললেন অধ্যাপক সৌমিত্র শেখর। আমরা জাতি হিসেবে খুব অতিথিপরায়ণ। ভাষার ক্ষেত্রেও তা সত্য। বাংলা ভাষার দ্বারে আসা অতিথিকে আমরা বরণ করে নিয়েছি, ভালোবেসেছি। ‘একুশে ফেব্রুয়ারি’তে আমরা এতটাই অভ্যস্ত যে এটাকে আর বিজাতীয় বলে মনে হয় না। প্রশ্ন করার সুযোগ পাওয়ার আনন্দে একজন ভুলে গেল প্রশ্নটা কী! মাইক্রোফোন হাতে নিয়ে বলল, ‘আমি প্রশ্নটা মনে হলে করব, আগে মনে করে নিই।’ সেকি হাসাহাসি তখন!
ভাষা প্রতিযোগ—তাহলে এইচএসবিসি লেখাটা ইংরেজিতে কেন? শহীদ মিনারে তো বর্ণ নেই। তাহলে লোগোর শহীদ মিনারে বর্ণ কেন?
প্রথমা, দ্বিতীয়া, তৃতীয়া বিভক্তি না হয়ে প্রথম, দ্বিতীয়, তৃতীয় বিভক্তি হলে সমস্যা কী?
এ রকম প্রশ্ন করার জন্য সবাই যখন উদ্গ্রীব। তখন কেউ কেউ ব্যস্ত ছিল দুষ্টুমিতেও। একটু গল্প করা, পাশের জনকে ফোড়ন কাটা, কথার মধ্যে কথা বলা—এসব যে একেবারে ছিল না তা নয়। তবে তারা মোটেই সুবিধা করতে পারেনি। সঞ্চালকের তীক্ষ দৃষ্টিতে ধরা পড়ছিল সবই। এরই মধ্যে ভাষা আন্দোলনের ৬০ বছর উপলক্ষে চর্যাপদের কাল থেকে বর্তমান সময় পর্যন্ত বাংলা ভাষার সংক্ষিপ্ত ইতিহাস তুলে ধরেন রফিকুর রশীদ।
এরপর মঞ্চে আসেন ক্লোজআপ তারকা সাব্বির। তিনটি গানের সুর-মূর্ছনায় মুগ্ধ করেন সবাইকে।
এবার সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন প্রথম আলো কুষ্টিয়া বন্ধুসভার সভাপতি মুনিরুজ্জামান। পুরো অনুষ্ঠানের সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন কুষ্টিয়া বন্ধুসভা। সবশেষে পুরস্কার বিতরণ। বৃক্ষ তুমি কী—ফলে পরিচয়। ফলাফলের ভিত্তিতে পুরস্কার, ঢাকায় যাওয়া এবং ‘বাংলা ভাষায় কাঁদি হাসি, সকল ভাষা ভালোবাসি’ লেখাসহ টি-শার্ট প্রাপ্তির সুযোগ। ফল ঘোষণা করেন প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ সহসম্পাদক কাজল রশীদ। তাঁর আগে অধ্যক্ষের হাতে ভেন্যু স্মারক তুলে দেন অধ্যাপক সৈয়দ আজিজুল হক। জয়-পরাজয়ে কেউ হেসেছে, কেউ বা মন খারাপ করেছে, এমনকি কেঁদেছেও। দুঃখ ভুলে পণ করেছে ভবিষ্যতের জন্য, নিজেকে তৈরি করার।
সম্মিলিত ছবি তোলার মধ্য দিয়ে পর্দা নামে অনুষ্ঠানের। তবু বন্ধ হয় না অটোগ্রাফ নেওয়ার পালা। অশ্রুসজল হয়ে ওঠে অনেকেই। যেতে ইচ্ছে করে না, তবু ঘরে ফিরতে হয়। চোখেমুখে থেকে যায় প্রত্যয় আর প্রত্যাশা। আগামী ভাষা প্রতিযোগে দেখা হবে নিশ্চয়।

 
 
 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

যারা বিজয়ী হলো

| তারিখ: ২০-০৪-২০১২

সেরাদের সেরা আলিফ সানজানা

সেরাদের সেরা আলিফ সানজানা

প্রাথমিক
প্রথম—আলিফ সানজানা, ফরিদপুর সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়। দ্বিতীয়—শামসুন নাহার, ১৭ নম্বর কালিশংকরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। তৃতীয়—প্রজ্ঞা পারমিতা, কুষ্টিয়া সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়।
বিশেষ পুরস্কার: কানিজ ফাতেমা হাফিজ, শেখ আবদুল্লাহ আল জুবায়ের, নাহিদা শামস, নূর হাসিনা, মুমতাহীনা মীম, অন্তু মজুমদার, মৌসুম ইসলাম, নাঈমুল ইসলাম, রামিস ওয়াসীত্ব, তাহসিন আক্তার, তন্ময় মজুমদার, ফতেমা আক্তার।

নিম্নমাধ্যমিক
প্রথম—সদীপ সেন, কুষ্টিয়া জিলা স্কুল। দ্বিতীয়—নাঈমা নাজমীন, কুষ্টিয়া সরকারি বালিকা বিদ্যালয়। তৃতীয়—তানজিমা খানম, স্কুল অব লরিয়েটস, কুষ্টিয়া।
বিশেষ পুরস্কার: নাঈম-উল-আবেদীন বিশ্বাস, মেহেদী হাসান, তাসনিম ফারহান, রোজিনা আহমেদ, কে এম ফারদিন শাহজাদা, জারিন মুসাবরাত, আতিকুর রহমান, বিভা পোদ্দার. সালমান ইব্রাহীম, সালমান জাহান, কাজী মেহেবুবা আক্তার, নাঈমুর আহমেদ।

মাধ্যমিক
প্রথম—রাদ শারার, কুষ্টিয়া জিলা স্কুল। দ্বিতীয়—ফারজানা সুলতানা, কুষ্টিয়া সরকারি বালিকা বিদ্যালয়। তৃতীয়—জান্নাতুল ফেরদৌস।
বিশেষ পুরস্কার: রাকেশ শর্মা, পারমিতা পাল, রানা হামিদ, তন্ময় সরকার, রোহেলী রেজা, ফারহান আহমেদ, বুশরা ইমাম, বিশেষ, শামিম আহসান, তাওসিকা তাহিয়া নুযহাত, মোহাইমেনুল ইসলাম, শাকীরেজওয়ানা, আসিফ জামান।

উচ্চমাধ্যমিক
প্রথম—জান্নাতুল, কুষ্টিয়া সরকারি কলেজ। দ্বিতীয়—সিচদাদ আলী, কুষ্টিয়া আদর্শ ডিগ্রি কলেজ। তৃতীয়—সোহেল রানা, কুষ্টিয়া সরকারি কলেজ।
বিশেষ পৃরস্কার: শাফী আবদুল্লাহ, আসিফ হাসান, পৃথিরাজ মজুমদার, নাসমুস সালেহীন, মাকসুদুল ইসলাম, ফারজানা রহমান, সাদমান ফাহিম, লাবণ্য অদিতি, এনামুল হক জোয়ার্দার, রোকসানা পারভীন, আলমগীর হোসেন, সৈকত রহমান।

এইচ এস বিসি প্রথম আলো ভাষা প্রতিযোগ ২০১২

ভাষা প্রতিযোগ ২০১২ এর শুরু

 

ভাষা প্রতিযোগ শুরু আজ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১২ কুষ্টিয়ায়

 

এইচএসবিসি ও প্রথম আলোর উদ্যোগে আজ শনিবার শুরু হচ্ছে ভাষা প্রতিযোগ ২০১২। প্রথম দিন কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজে এ প্রতিযোগ অনুষ্ঠিত হবে।

প্রতিযোগে মেহেরপুর,কুষ্টিয়া,মাগুরা,রাজবাড়ি,ফরিদপুর ও কুষ্টিয়া জেলার শতাধিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ৮০০ শিক্ষার্থী চারটি বিভাগে নাম নিবন্ধন করেছে। প্রতিযোগ শুরু হবে সকাল আটটায়। কুষ্টিয়া সরকারী মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ জমির উদ্দীন অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করবেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সৈয়দ আজিজুল হক ও অধ্যাপক সৌমিত্র শেখর জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক খালেদ হোসাইন,কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্বদ্যিালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক আবুল আহসান চৌধুরী ,অধ্যাপক হাবিব রহমানএইচএসবিসি ব্যাংকের কর্মকর্তা আরিফুর রহমান এবং প্রথম আলোর সহকারী সম্পাদক অরূণ বসু ও ভাষা প্রতিযোগের সমন্বয়ক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের শিক্ষক তারিক মঞ্জুর এ প্রতিযোগে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। প্রথম আলো কুষ্ঠিয়া বন্ধুসভার সদস্যরা ভাষা প্রতিযোগে সার্বিক সহায়তা করবেন।

 

 

 

নাটোর অঞ্চল

নিবন্ধন শুরু  ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১২ এবং শেষ হবে ২ মার্চ ২০১২।

অর্ন্তভূক্ত জেলা

নওগা,চাপাই নবাবগঞ্জ,জয়পুরহাট,বগুড়া,সিরাজগঞ্জ,পাবনা,রাজশাহী ও নাটোর।

 

প্রতিযোগের স্থান-

দিঘাপতিয়া এম কে ডিগ্রি কলেজ,নাটোর।

 

প্রতিযোগের তারিখ-

৫ মার্চ ২০১২।

 

নিবন্ধনের জন্য যোগাযোগ-

প্রতিনিধি-প্রথম আলো অফিস,বাসা#৮৬ দ্বিতীয় তলা,কানাইখালি চৌধুরীপাড়া,নাটোর।

মোবাইল-০১৭১১৮১৯৬৬৪,০১৯৩৮০১২২৮৫

 

দ্রষ্টব্য-চার বিভাগে চতুর্থ থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীরা প্রতিযোগে অংশ নিতে পারবে।

 

সঙ্গে আনতে হবে-

স্কুল/কলেজের পরিচয়পত্র/বেতন বই/রসিদ

 

বিস্তারিত জানতে- ০১৭১২৩৯৬৬০৩,০১৭২২৫২০৫৪৪

 

 

 

 

এইচ এস বিসি প্রথম আলো ভাষা প্রতিযোগ ২০১২

শাখা-ক (চতুর্থ-পঞ্চম)

 

  • ষ্ণ = ষ+ণ
  • বর্গীয় বর্ণ কয় ভাগে ভাগ করা যায়=
  • লৈখিক ভাষা কত প্রকার=
  • এক প্রকার পদকে অন্য পদে পরিবর্তন করাকে কি বলে=
  • বাঙলা বর্ণমালায় মাত্রাহীন বর্ণ=
  • বাক্যের কয়টি অঙশ থাকে=
  • হ এর উচ্চারণ স্থান কোনটি=
  • ঘোটক শব্দের অর্থ কী=
  • অনেকের মধ্যে একজন এক কথায় কি বলে=অন্যতম।
  • দিয়া শব্দটির চলিত রূপ কি হবে=দিয়ে।
  • কারা মায়ের পরিচয়ে বড় হয়=
  • বঙ্কিমচন্দ্র ছিলেন=ঔপন্যাসিক।
  • শহীদ মিনারের নকশা করেন কে=হামিদুর রহমান।
  • জাতীয় পতাকার নকশাকার=কামরুল হাসান।
  • কবে আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস=২১ ফেব্রুয়ারি।
  • বিষাদ-সিন্ধু কার লেখা=মীর মশাররফ হোসেন।
  • কান্তজীর মন্দির কোথায় অবস্থিত=দিনাজপুর।
  • কে বলেছেন ধর্ম নিয়ে বাড়াবাড়ি করবে না= মহানবী সা.।
  • নেপালিরা হিমালয়ের উচু শৃঙ্গকে কি বলে=সাগরমাতা।
  • কার মূল নাম ছিল মীর নিসার আলী=তিতুমীর।
  • কবি কায়কোবাদ জন্ম গ্রহণ করেন কোন জেলায়=
  • ধানক্ষেত কাব্য গ্রন্থের রচয়িতা কে=
  • মৃত্যুকালে কাজী নজরুলের বয়স কত ছিল=
  • আউশের ক্ষেত ----- ভর ভর=জলে ।
  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর কোথায় জন্মগ্রহণ করেন=জোড়াসাকো।
  • পাখির বাসা গ্রন্থের লেখক কে=
  • জুম চাষ হয় কোথায়=পাহাড়ে।
  • ড.গোবিন্দদেব শহীদ হন ১৯৭১ সালের কোন তারিখে=
  • কাজী নজরুল ইসলামের জন্ম কত সালে=১৮৯৯ সালে।
  • শিল্পাচার্য কার উপাধী=জয়নুল আবেদীন।
  • ব্যাঞ্জনবর্ণের সংক্ষিপ্ত রুপকে কি বলে=ফলা।
  • কয়টি কার চিহ্ন ব্যঞ্জনবর্ণের ডানে বসে=
  • একটি অঘোষ বর্ণের উদাহরণ=গ।
  • একটি বাক্য শেষ হলে কোন যতিচিহ্ন ব্যবহার করা হয়=দাড়ি।
  • আনারস কোন ভাষার শব্দ=পর্তুগীজ।
  • কর্তা যার সাহায্যে ক্রিয়া সম্পাদন করে তাকে কি বলে=করণ কারক।
  • নিরবধী শব্দের সন্ধি বিচ্ছেদ কি=নি:+অবধি।
  • ট্ট এই যুক্ত বর্ণের বর্ণ দুটি কি কি=ট+ট।
  • আমাদের জাতীয় সংগীত কে লিখেছেন=রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর।
  • শুশুক শব্দটি আছে কোন গল্পে=
  • আভা শব্দের অর্থ কি=আলো।
  • গরুর নি:শ্বাসের সাথে কোন গ্যাস বের হয়=মিথেন।
  • বাংলা ভাষায় পূর্ণমাত্রার বর্ণের সংখ্যা কত=৩২ টি।
  • হযরত উমর রা. কত সালে মারা যান=
  • টুনটুনি ও কুনো ব্যাঙ গল্পে বৃদ্ধার ফসল নষ্ট করেছিল কে=রংরাং পাখি।
  • বীর শ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান শহীদ হন=
  • কবি জসীম উদ্দীন জন্ম গ্রহণ করেন=১৯০৩ সালে।
  • কাজলা দিদি কবিতার শেষ চরণ কি=
  • বিদায় হজ্বে কত লাখ লোক উপস্থিত ছিল।=
  • ভাষার গান কবিতার পঙ্কক্তি সংখ্যা কত=
  • গোলাম মোস্তফার প্রার্থনা কবিতা কোন কাব্যের অর্ন্তভুক্ত=
  • কাজী নজরুল ইসলামের জন্মদিন কোনটি=
  • মেঘনাধবদ কাব্যের রচয়িতা কে=মাইকেল মধুসুদন দত্ত।
  • একুশে ফেব্রুয়ারিকে আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস ঘোষণা করা হয় কোন সালে।=১৯৯৯ সালে।
  • বাংলা ভাষায় কথা বলে পৃথিবীর কত লোক=৩০ কোটি প্রায়।
  • একাত্তুরের শহীদ সাংবাদিক কারা=শহীদুল্লাহ কায়সার,ফজলে রাব্বি।
  • সম্বাদ প্রভাকর পত্রিকার সম্পাদক কে ছিলেন=ঈশ্বরচন্দ্রগুপ্ত।

মিফরা এবং ওর বন্ধু অরিন। ওরা এসেছিল দিনাজপুর থেকে । এই ছবিটি তোলা হয়েছে ভিকারুনননিসা নুন স্কুল বেইলি রোড শাখা থেকে।

মিফরা এব

মিফরা এবং ওর বন্ধু তাসনুভা । ওরা এসেছিল দিনাজপুর থেকে

vasha protijog at viccarunnisa noon school 2010